Share with your friends
  •  
  •  
  •   
  •  

ক্রাইম এন্ড পানিশমেন্ট – ফিওদর দস্তয়ভস্কি – দুনিয়ার অন্যতম সেরা একটি উপন্যাস.

ক্রাইম এন্ড পানিশমেন্ট বইটিকে বিশ্বের সেরা ১০টি বইয়ের একটি বলা হয়। কি আছে বইটিতে ? ফিওদোর দস্তয়েভ্স্কির অনন্য এক সৃষ্টি আমার মনে হয় ক্রাইম এন্ড পানিশমেন্ট এটা দুনিয়ার সেরা ১০ টা উপন্যাস এর ভিতর থাকা উচিত , আর উনার লেখে আরো বই যখনিই পড়েছি তখন আমি নিজেই অনুভব করেছি আমার চিন্তা ভাবনাগুলো আর আগের মত থাকছে না। যে কোন বিষয় আমাকে আরো গভির ভাবে ভাবাতে সাহায্য করছে ফিওদোর দস্তয়েভ্স্কির লেখাগুলো।

এই উপন্যাসটি মনে হয় আমার পড়া সেরা বই গুলির একটি , ক্রাইম এন্ড পানিশমেন্ট বইটি রচনার সময়ে তৎকালীন রাশিয়ার প্রেক্ষাপটকে আমি চোখের সামনে দেখতে পাই

ক্রাইম এন্ড পানিশমেন্ট এ রাসকোলনিকভ কে আমি দেখতে পাই আমার খুব কাছের এক বন্ধুর মাঝে। শুধু সে কেন উপন্যাসের প্রতিটি চরিত্র খুব চমৎকারভাবে আমার চারপাশের মানুষগুলোর মাঝেই খুঁজে পাই। এ উপন্যাসের পট এক বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়া দারিদ্র পিষ্ট সমসয়া জর্জরিত এক যুবককে নিয়ে।

ক্রাইম এন্ড পানিশমেন্ট বইটিতে রাসকলনিকভ  নিজের এবং তার চারপাশের মানুষের জীবনের অভিশপ্ত জীবন দেখে বিদ্রোহী হয়ে উঠে। আর যুবকের মাঝে থাকে কিছুটা সুপিরিওরিটি কমপ্লেক্স। সে নিজেকে ভাবতে শুরু করে সমাজ উদ্ধারে পথিকৃৎ হিসাবে। আর সেই তাড়না থেকে সে খুন করে সম্ভাবনাহীন জীবনকে যাপিত করা এক পুজিপতি বুড়িকে। এবং খুব অলৌকিকভাবে সে পুলিশের চোখকে ফাঁকি দিতে সমর্থ হয়। তারপর শুরু হয় তার আত্মদ্বন্দ্ব। সে শারীরিক এবং মানসিকভাবে বিকারগ্রস্থ হয়ে যায়। এসময় তার বন্ধু রাজুমিখিন ঢুকে পড়ে উপন্যাসে তার সমর্থনদাতা উপকারী বন্ধু হিসাবে।

ক্রাইম এন্ড পানিশমেন্ট বইতে  অসাধারন সোনিয়ার কথা মনে থাকতে হবে সবার এটা বলতে পারি । সোনিয়ার প্রেম রাসকলনিকভকের মধ্যে থেকে ভাল মানুষটিকে বের করে আনে। সে আত্মসমর্পণ করে এবং বিচারে নির্বাসিত হয় সাইবেরিয়ায়। শুরু হয় দুজন মানুষের অপেক্ষার পালা। নির্বাসিত জীবন শেষে মুক্ত রাসকলনিকভ বেরিয়ে আসবে শুদ্ধ মানুষ হয়ে। তারই অপেক্ষায় থাকে সোনিয়া।

চরিত্রগুলি

  • রদিও রোমানভিচ রাস্কল্‌নিকভ – উপন্যাসের কেন্দ্রীয় চরিত্র। ২৩ বছর বয়সী প্রাক্তন শিক্ষার্থী এবং বর্তমানে বঞ্চিত। দেখতে খুবই সুদর্শন, স্বাভাবিকের চেয়ে লম্বা, কালো চোখ ও গাঢ় বাদামি চুলের অধিকারী।
  • সোফিয়া সেমিওনভনা মার্মেলাদোভা – সোনিয়া ও সোনেচ্‌কা নামেও পরিচিত, সেমিওন জাখারভিচ মার্মেলাদোভের মেয়ে, যার সাথে উপন্যাসের শুরুতেই রাস্কল্‌নিকভের সাক্ষাৎ হয়।
  • আভদত্য রোমানভা রাস্কল্‌নিকভা – রাস্কল্‌নিকভের কর্তৃত্বপূর্ণ কিন্তু দরদী বোন, দুনইয়া বা দুনেচ্‌কা নামেও ডাকা হয়।
  • পুলখেরিয়া আলেক্সাদ্রভনা রাস্কল্‌নিকভা – রাস্কল্‌নিকভের দূরসম্পর্কের আত্মীয়, আশাবাদী এবং স্নেহবতী মা।
  • দিমিত্রি প্রকফিচ ভ্রাজুমিখিন – রাজুমিখিন নামেও পরিচিত, রাস্কল্‌নিকভের বিশ্বস্ত বন্ধু এবং প্রাক্তন আইনের শিক্ষার্থী।

আমাদের রিভিউ ক্যাটেগরি তে রেয়েছে অনেকগুলি বই এর রিভিউ  https://www.swapybooks.com/category/books-review/